বাবা

0
430
বাবা
মোঃআব্দুল্লাহ আল মামুন
বাবা কেমন আছ তুমি খুব জানতে ইচ্ছে করে
আজও কি ভালবাস ছোট্ট বেলার মত করে?
মনে পরে প্রতিক্ষণে ছোট্ট বেলার কথা
সবসময়ে ছিলে বাবা আমার খেলার সখা।
হাত ধরে তোমার সাথে যেতাম খেলার মাঠে
সাথীদের সাথে খেলতাম তুমি থাকতে বসে পাশে।
সন্ধ্যা হলে কোলে তুলে ফিরতে তুমি বাড়
মসজিদে না নিয়ে গেলে ধরতাম আমি আড়ি।
সারারাত টা পাখা হাতে করতে তুমি বাতাস
বাতাস একটু বন্ধ হলে কাটাতাম এপাশ ওপাশ।
সকাল হলে খাবার দিয়ে বসতে তুমি পড়াতে
বড় হওয়ার অনেক গল্প আমায় সদা শোনাতে।
বলতে ডেকে মাকে তুমি ওগো তুমি শুনো
আমার মানিক অনেক বড় হবে কথাটা মনে রেখ।
স্কুল হতে ফিরে এলে ব্যাগটা নিতে আগে
খাবারের কত পরশা নিয়ে বসতে আমার পাশে।
ঈদের দিনে নতুন জামা কিযে খুশি আমার
দেখিনি তখন চোখ টা মেলে পরনে পুরানোটা তোমার।
কলেজে যাওয়ার সময় হাতের মাঝে গুজে দিতে টাকা
খিদে পেলে খেয়ে নিও মনে চাইবে যাহা।
মুখটা কভূ মলিন দেখলে করতে গালে আদর
সেই আদর আজও জড়িয়ে আছে হয়ে ভালবাসার চাদর।
ভাল রেজাল্ট করতাম যখন শুনে ফেলতে চোখের জল
কাছে ডেকে বলতে তুমি যেনে রেখ বাবা মায়ের দোয়া হয়না কভূ বিফল।
যে দিন আমার চাকরী হলো খুশিতে তুমি আত্মহারা
জড়িয়ে ধরে বললে বাবা আজ পূর্ণ হলো আমার সকল চাওয়া পাওয়া।
আজ আমি মাইনে পাই তাই তুমি টাকা দাও না
আমার মাইনের হাজার টাকা বাবা তোমার ২ টাকার যে সমান না।
মনে শত কস্ট থাকলেও কভূদাওনি আমায় বুঝতে
গভীর রাতে সিজদার মাঝে প্রভূর কাছে আমার কথা বলতে।
মা যে সদা তোমার কথা আমার কাছে কয়
আমার কথা ভেবে ভেবে তুমি রাত্রি কর ক্ষয়।
আজকে বাবা আমি অনেক বড় নইতো তোমার ছোট্ট খোকন
দেশ বিদেশে ঘুড়ে বেড়াই বিশ্বটা আজ হাতের মুঠোয় এখন।
কত কথা তোমার সাথে বাবা হয় যে রাশি রাশি
হয়নি বলা একটা কথা বাবা তোমায় বড্ড ভালবাসি।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here